“কুরবান ভাই কুরবান ভাই সোহাগী আপা চিঠি পাডাইচে”

এই দেখিত কি লিখেছে চিঠিতে !!! ওফ, জানেমান, মেরি জান, চিঠি দিয়েছে ডেটিং করতে। মাঝ রাত, আকাশে জোসনার আলো , তার নিচে ঝোপঝাড়ের মধ্যে প্রেম হবে। মেরি তামান্না…… যাই যাই।

“এ মামু দোয়া রাখিস, সোহাগীর কাসে যাইতাসি, পরে কথা কমু।”

ডেটিং করতে যাচ্ছিলাম…
আন্ধার রাইতে পুকুর পাড়।
চাঁদনী রাতে পেচায় চিল্লায়,
হেইল্লা ধরে কুত্তার পাও।

(ওমা……)
শেষমেষ একটা ঝোপের ভিতর
… করে হাইন্দে যাই।
উকি ঝুকি মাইরা খুঁজি,
সোহাগী তুমি পৌছাও নাই।
ডেঙ্গু মশার কামড় খাইয়া গায়ে উঠে পেইন,
চুলকাইতে চুলকাইতে খুললাম প্যান্ট এর চেইন,
ও কি মহা প্রবলেম…… (ওমাগো)

চুলকাও খাউজাইয়া দাও… কামড়াইসে ডেঙ্গু মশা (আহা)…
পিঠ কাইত করে চুলকাও…কামড়াইসে ডেঙ্গু মশা।
কিল চর থাপ্পড় দেয়… সোহাগীর খালাম্মা আইসা ( ও ও ও )
পিরিত করতে চাইয়া রীতিমত খাইসি ধোঁকা,
রীতিমত হইসি বোকা… রীতিমত খাইসি ধোঁকা।

ওমা কি দজ্জাল বেটি,
গায়ে ঢালে কেরোসিন তেল,
বলল যদি আবার আবি,
মাথা চাইচ্ছা করব বেল।

ডেঙ্গু মশার কামড় খাইয়া গায়ে উঠসে পেইন,
চুলকাইতে চুলকাইতে খুললাম পেন্ট এর চেইন,
ও কি মহা প্রবলেম ( ওমা গো… )

চুলকাও খাউজাইয়া দাও… কামড়াইসে ডেঙ্গু মশা,
পিঠ কাইত করে চুলকাও…কামড়াইসে ডেঙ্গু মশা।
কিল চর থাপ্পড় দেয়…সোহাগীর খালাম্মা আইসা ( আম্মা গো)
পিরিত করতে চাইয়া রীতিমত খাইসি ধোঁকা,
রীতিমত হইসি বোকা… কামড়াইসে ডেঙ্গু মশা।

ডেঙ্গু মশার কামড় খাইয়া গায়ে উঠে পেইন,
চুলকাইতে চুলকাইতে খুললাম পেন্ট এর চেইন,
ও কি মহা প্রবলেম।

চুলকাও খাউজাইয়া দাও… কামড়াইসে ডেঙ্গু মশা,
পিঠ কাইত করে চুলকাও…কামড়াইসে ডেঙ্গু মশা।
কিল চর থাপ্পড় দেয়… সোহাগীর খালাম্মা আইসা।
পিরিত করতে চাইয়া রীতিমত খাইসি বোকা।