একটি কুড়ি দুটি পাতা রতনপুর বাগিচায়

  • শিল্পীঃ ভূপেন হাজারিকা
  • অ্যালবামঃ পাওয়া যায় নি
  • সুরকারঃ পাওয়া যায় নি
  • গীতিকারঃ পাওয়া যায় নি
  • বছরঃ পাওয়া যায় নি
  • বিভাগঃ আধুনিক

একটি কুড়ি দুটি পাতা রতনপুর বাগিচায়
অমল কোমল হাত বাড়িয়ে লছমি আজো তোলে

সবুজ পাতার বাহারে দুলতো দোদুল আহারে
প্রেমের পরাগ তার ছড়াতো হাসিলে
ও বাতাসে নাচিলে

জগ্নু আর লছমি যে বিয়ের রাতে ঝুমুরে
রতনপুর বাগিচায় জোয়ারে তুলেছে,
ও জোয়ার তুলেছে

তাদের প্রেমের কুটিরে ছোট্ট শিশু এলরে
কী দেব তার তুলনা চাঁদের আলো ঝরে

জগ্নু যেন যুবক পাতার লছমি লজ্জাবতী লতা
দুটি পাতার বুকে কুড়ি ঘুমায় পড়িলে ও ঘুমায় পড়িলে
এই মানুষরূপী পাতার সাত পিশাচেরা বাড়ায় হাত
অকালে হায় ছিনিয়ে নিতে আসে দলে দলে ঐ আসে দলে দলে

ভয়ে পাতা গুটিসুটি আধিক ফোঁটা কুড়িটি
আড়াল করে ঢেকে রাখে পিশাচ আসিলে ঐ পিশাচ আসিলে

তাম্রবরণ দুহাতে সবল বাহুর আঘাতে।
ধম ধমা ধম মাদল বাজায় নতুন সাড়া তুলে
হাজার দেহ দোলে হাজার দেহ দোলে
নতুন দিনের আহবানে হাজার চোখের আগুনে
বজ্র মাদল গর্জনে পিশাচ তাড়ালে ও পিশাচ তাড়ালে।।