কত রঙ্গ জানরে মানুষ কত রঙ্গ জান।
তুমি এই ভাল এই মন্দ
ক্ষণে হাস ক্ষণে কান্দ
হায়রে একি দ্বন্দ।।

চক্ষু দুইখান হাত দুইখান
আছে সবার সমান সমান।
তবু কেন নানান রকম
চলন বলন মনের ধরণ
বুঝি না তার মর্ম।।

ঘুড়লাম কত দেখলাম কত
পাইলাম না মন মনের মত।
আমি অধম আর কী বলি
জ্ঞানের ডিব্বা রইলো খালি
বৃথা সাদের জন্ম।।