চিরদিন পুষলাম এক অচিন পাখি
ভেদ-পরিচয় দেয় না আমায়
ঐ খেদে ঝরে আঁখি
আমার ঐ খেদে ঝরে আঁখি।।

পাখি বুলি বলে শুনতে পাই
রূপ কেমন তা দেখিনা ভাই
বিষম ঘোর দেখি।
আমি বিষম ঘোর দেখি।

কোন দিন জানি উড়ে যাবে
ধুলো দিয়ে দুই চোখই।।

পোষা পাখি চিনলাম না
এ লজ্জা তো যাবে না উপায় কি করি
আমি উপায় কি করি।।

চিনাল পেলে চিনে নিতাম
যেতো মনের ধুকধুকি।।

আছে নয় দরজা খাঁচাতে
যায় আসে পাখি কোন পথে

চোখে দিয়ে রে ভেল্কি
আমার দিয়ে রে ভেল্কি।

সিরাজ সাঁই কয়
বয় লালন বয়
ফাঁদ পেতে রে সিঁদমুখী।।