ও যে মানে না মানা।
আঁখি ফিরাইলে বলে, ‘না, না, না।’

যত বলি ‘নাই রাতি –মলিন হয়েছে বাতি’
মুখপানে চেয়ে বলে, ‘না, না, না।’

বিধুর বিকল হয়ে খেপা পবনে
ফাগুন করিছে হা-হা ফুলের বনে।

আমি যত বলি ‘তবে
এবার যে যেতে হবে’
দুয়ারে দাঁড়ায়ে বলে, ‘না, না, না।’