আমার বাবার কথা বড়ই মনে পড়ে
ছবির দিকে তাকিয়ে এখন দুচোখ জলে ভরে।।

আদর করে দুহাত ধরে মেলায় আমায় নিত
এক পয়সার পাতার বাঁশি বাবা কিনে দিত
কিনত নাটাই কিনত ঘুড়ি
বোনের জন্য আলতা চুড়ি
মায়ের জন্য ডুরে শাড়ি-কিনে ফিরতো ঘরে।।

মাঝে মাঝে বকতো বাবা পড়া ফাকি দিলে
ধারাপাতের নামতাগুলো খেতে হতো গিলে
সাংগ হত দিনের খেলা, উঠত তারা সন্ধা বেলা
বাবা এদের নাম শেখাতো-কতই যতন করে।।

এখন আমি নিজেই বাবা পাক ধরেছে চুলে
পেছন দিকে তাকিয়ে ভাবি স্মৃতির দোয়ার খোলে
আজও আমায় বাবাই ডাকে প্রতি কাজে জড়িয়ে থাকে
ওপাড় হতে বলছে যেন ভাল থাকিস ওরে।।