আশা ছিল মনে মনে, প্রেম করিমু তোমার সনে
তোমায় নিয়া ঘর বান্ধিমু গহীন বালুর চরে গো ……
গহীন বালুর চরে।।

সেই ঘরেতে তোমার-আমার মধুর মিলন হইতো
তোমার শাড়ীর আঁচলেতে পরাণ বান্ধা রইতো

রঙিন কাঁথায় থাকতাম শুইয়া, তোমায় বুকে লইয়া
চাঁদের আলোয় রাইত পোহাইতাম কথা কইয়া কইয়া
সেই সুখের স্বপন চোখে ভাসে, পরাণ উদাস করে গো ……
গহীন বালুর চরে।।

তোমার প্রেমের একটু পরশ গায়ে যদি লাগতো
ব্যথায় পোড়া বুকেতে এক সুখের সাগর জাগতো

তোমার কথা ভাইবা মরি নৌকা বাইতে বাইতে
কানাকড়ি চাই না, আহা তোমারে চাই পাইতে
সেই বালুচরে কাটতো জীবন মরণেরও পরে গো ……
গহীন বালুর চরে।।