আমার মা যে গোপাল সুন্দরী
যেনো এক বৃন্তে কৃষ্ণ কলি অপরাজিতার মঞ্জরী…।।

মা আধেক পুরুষ অর্ধ অঙ্গে নারী
আধেক কালি আধেক বংশীধারী
মার অর্ধ অঙ্গে পীতাম্বর আর অর্ধ অঙ্গে সে দিগম্বরী
আমার মা যে গোপাল সুন্দরী…।।

মা যে পায়ে প্রেম কুসুম ফোটায়
নুপুর পরা সেই চরণ
মার সেই হাতে রয় সর্প বলায়
যে হাতে প্রলয় মরন…।।

মার আধ ললাটে অগ্নি তিলক জ্বলে
চন্দ্র লেখা আধেক ললাট তলে
শক্তিতে আর ভক্তিতে মা আছে যুগল রূপ ধরি
আমার মা যে গোপাল সুন্দরী…।।