আন্‌ গো তোরা কার কী আছে
দেবার হাওয়া বইল দিকে দিগন্তরে–
এই সুসময় ফুরায় পাছে।

কুঞ্জবনের অঞ্জলি যে ছাপিয়ে পড়ে,
পলাশকানন ধৈর্য হারায় রঙের ঝড়ে,
বেণুর শাখা তালে মাতাল পাতার নাচে।।

প্রজাপতি রঙ ভাসালো নীলাম্বরে
মৌমাছিরা ধ্বনি উড়ায় বাতাস-‘পরে।

দখিন-হাওয়া হেঁকে বেড়ায় “জাগো জাগো’,
দোয়েল কোয়েল গানের বিরাম জানে না গো–
রক্ত রঙের জাগল প্রলাপ অশোক-গাছে।।