ওগো দখিন হাওয়া, ও পথিক হাওয়া, দোদুল দোলায় দাও দুলিয়ে।
নূতন-পাতার-পুলক-ছাওয়া পরশখানি দাও বুলিয়ে।।

আমি পথের ধারের ব্যাকুল বেণু হঠাৎ তোমার সাড়া পেনু গো
আহা, এস আমার শাখায় শাখায় প্রাণের গানের ঢেউ তুলিয়ে।।

ওগো দখিন হাওয়া, ও পথিক হাওয়া, পথের ধারে আমার বাসা।
জানি তোমার আসা-যাওয়া, শুনি তোমার পায়ের ভাষা।

আমায় তোমার ছোঁওয়া লাগলে পরে একটুকুতেই কাঁপন ধরে গো–
আহা, কানে-কানে একটি কথায় সকল কথা নেয় ভুলিয়ে।।